Ultimate magazine theme for WordPress.

৩৯ দিন মিয়ানমারের সেনা সদস্যকে হস্তান্তর

0

কক্সবাজার থেকে প্রতিনিধি/- রোববার দুপুর সোয়া ১২টার দিকে ঘুমধুম সীমান্তের বাংলাদেশ-মিয়ানমার ফ্রেন্ডশিপ ব্রিজ পয়েন্ট দিয়ে মিয়ানমারের কাছে হস্তান্তর করা হয়মিয়ানমারের সেনা সদস্যকে।আটকের ৩৯ দিন পর সেদেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিপির কাছে তাকে হস্তান্তর করেছে বিজিবি।

বিষয়টি নিশ্চিত করে কক্সবাজার বিজিবি-৩৪ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল আলী হায়দার আজাদ আহমেদ বলেন, নাইক্ষ্যংছড়ির ভাল্লুকখাইয়া সীমান্তের হাতিছড়া এলাকা থেকে গত ২৪ জানুয়ারি মিয়ানমারের ওই সেনা সদস্যকে আটক করা হয়। তার নাম অং বো বো থিন।

আটকের সময় তার পরনে মিয়ানমার সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিজিপি) পোশাক ছিল। জিজ্ঞাসাবাদে ওই সেনা সদস্য জানিয়েছেন- তিনি মিয়ানমার সেনাবাহিনীর এলআইবি-২৮৭ ব্যাটালিয়নের সদস্য। রাখাইনের বান্ডুলা ৫০নং ক্যাম্পে প্রেষণে দায়িত্বরত ছিলেন। তিনি ঘুরতে ঘুরতে সীমান্ত অতিক্রম করে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করেছিলেন। এ সময় তাকে আটক করা হয়। আটকের পর তাকে জেনেভা কনভেশন অনুযায়ী খাওয়ার, চিকিৎসা, বাসস্থানসহ সকল সুযোগ সুবিধা দেয়া হয় ।

তিরি আরও জানান, রোববার বিজিবি ও বিজিপির বৈঠকে ৯ সদস্য বিশিষ্ট প্রতিনিধি দলের বাংলাদেশের পক্ষে নেতৃত্ব দেন বিজিবি-১১ ব্যাটালিয়েনের অধিনায়ক লে. কর্নেল আসাদুজ্জামান। মিয়ানমারের বিজিপির ১২ সদস্য বিশিষ্ট প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন বিজিপির ১নং সেক্টরের ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মিং তং। বৈঠকে দুই দেশের সৌহার্দপূর্ণ আলোচনা হয়েছে। বৈঠক শেষে ওই সেনা সদস্যকে হস্তান্তর করা হয়।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.