‘বিএনপির মনোনয়নপ্রত্যাশী নেতার লাশ বুড়িগঙ্গায়’

0

ষ্টাফ রিপোর্টার/- একাদশতম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির মনোনয়নপ্রত্যাশী এক নেতার লাশ বুড়িগঙ্গায় পাওয়া গেছে বলে দাবি করেছেন দলটির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

বৃহস্পতিবার রাতে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এই কথা বলেন তিনি।

রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘যশোর জেলা বিএনপির সহসভাপতি ও চারবারের ইউপি চেয়ারম্যান আবু বকর মনোনয়ন ফরম জমা দিয়ে সাক্ষাৎকার দেওয়ার জন্য ঢাকার একটি হোটেলে অবস্থান করছিলেন। গত রোববার তাকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা তুলে নিয়ে যাবার পর তার কোনো খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। বুড়িগঙ্গা নদীতে তার লাশ পাওয়া গেছে।’

তিনি বলেন, ‘এলাকার একজন জনপ্রিয় নেতা ও জনপ্রতিনিধি আবু বকর আবুকে নির্মমভাবে হত্যা করার পর লাশ বুড়িগঙ্গায় ফেলে দেয় হত্যাকারীরা। কোটা সংস্কার আন্দোলনে এভাবেই একজন আন্দোলনকারীর লাশ ভেসে উঠেছিল বুড়িগঙ্গায়।’

সরকার আগুন নিয়ে খেলা শুরু করেছে মন্তব্য করে বিএনপির এই নেতা বলেন, ‘জনপ্রিয় জনপ্রতিনিধিকে হোটেল থেকে তুলে নেওয়া হলো, আর গায়েব করে হত্যা করার মাধ্যমে তার লাশ বুড়িগঙ্গায় ফেলা দেওয়া হলো। বর্তমান সরকারের পৃষ্ঠপোষকতায় এজেন্সির মাধ্যমে এই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়েছে।’

তিনি আবু বকর আবুর হত্যাকাণ্ডের তীব্র নিন্দা জানিয়ে অবিলম্বে হত্যাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি জানান।

শাহবাগ থানা বিএনপি নেতা মো. আজিমকে বৃহস্পতিবার দুপুরে সাদা পোশাকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে অভিযোগ করে রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘তাকে আটক করে নিয়ে গেলেও এখনো পর্যন্ত স্বীকার করছে না। সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজ নিলেও তার সন্ধান মেলেনি। আমি অবিলম্বে মো. আজিমকে জনসমক্ষে হাজির করার জোর দাবি জানাচ্ছি।’

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.